বৃহস্পতিবার, ০৮ ডিসেম্বর ২০২২, ১০:১৩ অপরাহ্ন

  • বাংলা বাংলা English English

এশিয়া কাপ ও বিশ্বকাপে সাকিবের দাপট প্রত্যাশায় ওয়াটসন
রিপোর্টারের নাম / ৮৩ বার
আপডেট সময় বৃহস্পতিবার, ০৮ ডিসেম্বর ২০২২

প্রত্যাশা টিভি ডেস্ক:এশিয়া কাপ ও টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে ব্যক্তিগত ও অধিনায়কত্বে দাপট দেখাবেন সাকিব আল হাসান। সাবেক অস্ট্রেলিয়ান তারকা অলরাউন্ডার শেন ওয়াটসনের প্রত্যাশা তেমনটাই। আইসিসি রিভিউয়ে এক সাক্ষাৎকারে মঙ্গলবার এমনটা বলেন ওয়াটসন।

টি-টোয়েন্টির ব্যর্থতা ঝেড়ে ফেলতে ফরম্যাটে বিশ্বের অন্যতম সেরা খেলোয়াড়ের হাতে আবারও দায়িত্ব তুলে দিয়েছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। এশিয়া কাপ ও বিশ্বকাপে সাকিবই টাইগারদের নেতৃত্বে থাকবেন। ওয়াটসনের মতে এ দুটি বড় সিরিজে অধিনায়ক হিসেবে দারুন পারফরম্যান্স করবেন সাকিব। তার অধীনে উজ্জীবিত হবে বাংলাদেশ টি-টোয়েন্টি দল।

ওয়াটসন বলেন, ‘সাকিবের মতো একজন যোগ্যতাসম্পন্ন নেতা যখন দায়িত্ব পেয়েছে, তখন দলগতভাবে আরও সুসংগঠিত হবে বাংলাদেশ। সে খুবই অভিজ্ঞ ক্রিকেটার। বাংলাদেশকে সে আগেও নেতৃত্ব দিয়েছে। এমনকি ফ্র্যাঞ্চাইজি ক্রিকেটেও নেতৃত্ব দিয়েছে, বিশেষ করে বিপিএলে।’

সাকিবের নেয়ার ক্ষমতার প্রশংসা করে ওয়াটসন বলেন, ‘চাপের মধ্যে সাকিবের সিদ্ধান্ত নেয়ার ক্ষমতা দুর্দান্ত। যখন কোনো ক্রিকেটারের নিজেকে প্রমাণের ক্ষেত্র থাকে ও ভালো করার ক্ষুধা থাকে, তখন সে দাপুটে ক্রিকেট খেলতে পারে। সাকিব এশিয়া কাপ ও বিশ্বকাপে আধিপত্য বিস্তার করতে না পারলে আমি খুবই অবাক হব।’

অস্ট্রেলিয়ার শীর্ষ অলরাউন্ডার হিসেবে ১০ বছর আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে খেলেছেন ওয়াটসন। শারীরিকভাবে কতটুকু চাপ যায়, তা ভালো করে জানেন তিনি। তার মতে সাকিবকেও এ বয়সে শারীরিক চাপ নিতে হচ্ছে।

ওয়াটসন বলেন, ‘আন্তর্জাতিক ক্রিকেট খেলার অভিজ্ঞতা থেকে বলতে পারি, অলরাউন্ডারের কাজটা খুব চ্যালেঞ্জিং। যখন আপনি দিনের পর দিন খেলবেন তখন নিজের যত্ন নিতে হয় ও শক্তি সংরক্ষণ করতে হয়। আর ব্যাটিংয়ের দৃষ্টিকোণ থেকে দেখলে দীর্ঘ সময় যাবত শারীরিক ও মানসিক শক্তি বজায় রাখতে হয়।’

আরও যোগ করে ওয়াটসন বলেন, ‘সাকিব যা করছেন সেটা অনেক কঠিন। বাইরে থেকে মনে হতে পারে একজন স্পিনিং অলরাউন্ডার, বাঁ-হাতি স্পিনারকে হয়তো খুব বেশি শারীরিক পরিশ্রম করতে হয় না। কিন্তু উপমহাদেশের কন্ডিশনে অনেক বোলিং করছে সে। আবার দলের ব্যাটিং লাইনআপেও মূল ভূমিকা পালন করছে সে।’

আন্তর্জাতিক অঙ্গন ও ফ্র্যাঞ্চাইজি টি-টোয়েন্টি লিগে অনায়াসে খেলে যাচ্ছেন সাকিব। ৩৫ বছর বয়সেও, ক্রিকেটের ৩ ফরম্যাটে সাকিবের খেলাটা মুগ্ধ করেছে ওয়াটসনকে। ভবিষ্যতে সাকিবের মত তিন সংস্করণে কাউকে খেলতে দেখা যাবে কি-না, তা নিয়ে সন্দেহ রয়েছে অস্ট্রেলিয়ার হয়ে ৩০০ আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলা ওয়াটসনের।

তিনি বলেন, ‘৩ ফরম্যাটে সাকিবকে খেলতে দেখা অসাধারণ অভিজ্ঞতা। ১৫ বছর ধরে ব্যাট হাতে তিন ফরম্যাট মিলিয়ে ৩০-এর বেশি গড় এবং বল হাতে ৩০-এর নিচে গড় ধরে রাখা অবশ্যই বিশেষ কিছু।’

আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর

জনপ্রিয় সংবাদ
সর্বশেষ সংবাদ